ফতুল্লায় হত্যার উদ্দেশ্যে ব্যাংক কর্মকর্তাকে ছুরিকাঘাত

নারায়ণগঞ্জের সোনালী ব্যাংক গোদনাইল শাখার এক কর্মকর্তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে চাকু দ্বারা আঘাত করার অপরাধে মো. রবিন (৩৯) নামের এক চায়ের দোকানদারকে গ্রেপ্তার করেছে ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশ। বুধবার (৩০ সেপ্টম্বর) দিবাগত রাত ২টায় ফতুল্লা পুলিশের বিশেষ অভিযানে রবিনকে নগরীর মাহমুদপুর এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয় বলে জানা গেছে।

থানায় দায়ের করা এজাহার সূত্রে জানা গেছে, নারায়ণগঞ্জ সিদ্ধিরগঞ্জের সোনালী ব্যাংক গোদনাইল শাখার কর্মকর্তা মো. শাহজাহান পাটোয়ারী (৪৮) মঙ্গলবার (২৯ সেপ্টম্বর) অফিস শেষ করে রিক্সা যোগে ভূইগড় মাহমুদপুরের বাড়ীতে আসে। সেই সময় বাদী রিক্সাওয়ালাকে ১০০ টাকার নোট দিয়ে ভাড়া রাখতে বলে। রিক্সাওয়ালার কাছে ভাংটি না থাকায় ওই কর্মকর্তা পাশ্ববর্তী চায়ের দোকানদার আসামী রনিব এর কাছে ১০০ টাকার খুচরা চায়। আসামী রবিন ১০০ টাকার ভাংটি না দিয়ে ব্যাংক কর্মকর্তা শাহজাহানকে কটুক্তি করে। কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে চয়ের দোকানদার রবিন, রাশেদ সহ তাদের সহযোগী অজ্ঞাতনামা ৩/৪জন ওই ব্যাংক কর্মকর্তাকে এলোপাতারী মারপিট করে এবং আসামী রবিন হত্যার উদ্দেশ্যে তার হাতে থাকা ধারালো চাকু দিয়ে ব্যাংক কর্মকর্তা শাহজাহানের পিঠের বাম পাশে পোচ মেরে গুরুতর জখম করে।

পুলিশের দাবী আসামী রবিন চায়ের দোকানদার হলেও তার স্বভাব চরিত্র খারাপ। রবিন চায়ের দোকানের ফাকে ধারালো চাকু হেফাজতে রেখে বিভিন্ন অপরাধ মূলক কর্মকান্ড করে বেড়ায়। আসামীর চাকুর আঘাতে ব্যাংক কর্মকর্তা শাহজাহান গুরুতর জখম প্রাপ্ত হয়েছে এবং তার অবস্থা আশংকাজনক।