সিদ্ধিরগঞ্জে গার্মেন্টে ভয়াবহ আগুন, ১২ কোটি টাকার ক্ষতি

সিদ্ধিরগঞ্জে গার্মেন্টে ভয়াবহ আগুন, ১২ কোটি টাকার ক্ষতি

সিদ্ধিরগঞ্জের পুলস্থ এলাকায় একে ফ্যাশন নামের রপ্তানিমুখী একটি তৈরি পোশাক কারখানায় ভয়াবহ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে

বেঙ্গল রিপোর্ট২৪:
নারায়ণগঞ্জ মহানগরের সিদ্ধিরগঞ্জের পুলস্থ এলাকায় একে ফ্যাশন নামের রপ্তানিমুখী একটি তৈরি পোশাক কারখানায় ভয়াবহ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে।

অগ্নিকান্ডে ওই প্রতিষ্ঠানের প্রায় ১২ কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে মালিকপক্ষ দাবি করেন।

০১ সেপ্টেম্বর (রোবিবার) ভোররাত ৪ টার সময় সিদ্ধিরগঞ্জপুলস্থ মজিব ভবনে ভাড়া নেওয়া একে ফ্যাশনের ২য় তলায় এ অগ্নিকান্ডের ঘটনাটি ঘটে।

ডেমরা, আদমজী, হাজীগঞ্জ মন্ডলপাড়ার ফায়ার সার্ভিসের ৯ টি ইউনিট ৪ ঘন্টা চেষ্টা চালিয়ে অঅগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়।

জানা যায়, রোববার ভোর ৪ টার সময় সিদ্ধিরগঞ্জপুলে একে ফ্যাশন গার্মেন্টের সিকিউরিটি গার্ড ২য় তলায় আগুন দেখতে পেয়ে মালিকপক্ষকে ফোনে জানালে তারা দ্রুতত ঘটনাস্থলে এসে আদমজী ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেয়। পরে আদমজী, হাজীগঞ্জ, ডেমরা এবং মন্ডলপাড়া ফায়ার সার্ভিসের মোট ৯ টি ইউনিট ৪ ঘন্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে ঠিক কী কারণে আগুনের সূত্রপাত হয়েছে তা কেউ স্পষ্ট করে বলতে পারছেনা।

ঘটনার বিষয়ে ফায়ার সার্ভিসের উপ সহকারী পরিচালক আকতারুজ্জামান জানান, এ বিষয়ে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হবে, তদন্ত কমিটির রিপোর্ট পেলে তারপর জানা যাবে আগুনের সূত্রপাত কিভাবে হয়েছে এবং ক্ষতির পরিমাণ।

একে ফ্যাশনের পরিচালক ইসফাত আহসান জানান, ভোর বেলায় আগুনের কথা শুনে দ্রুত গন্টামেন্টে ছুটে যাই । আগুনের লেলিহাল শিখা আমাদের সব কিছু শেষ করে দিয়েছে বলে ওই পরিচালক জানান।

ইসফাত আহসান আরও জানান শরিবার সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত গার্মেন্টস চালু ছিল এ পর কারখানা বন্ধ করে সবাই চলে যায় । নিচ তলায় বৈদ্যুতিক মেইন সুইচ বন্ধ ছিলো। তাই শর্ট সার্কিটের মাধ্যমে ২ তলায় আগুনের সূত্রপাত হওয়া অসম্ভব দাবি করে তিনি পুরো বিষয়টি রহস্যজনক বলে মনে করেন।
এ অগ্নিকান্ডকে নাশকতামূলক হতে পারে বলে তিনি মনে করেন।

তিনি আরও জানান, ৭ লাখ পিস প্রস্তুত করা গেঞ্জি ছিলো। গেঞ্জিগুলো রোববার ইউরোপের বিভিন্ন দেশে পাঠানোর কথা ছিলো এবং এর সাথে আরও বিভিন্ন ফেব্রিক্সও ছিলো। একটি ডিজিটাল কাটার মেশিনসহ সব কিছু পুড়ে শেষ হয়ে গেছে।এদিকে মালিকপক্ষের ভাগিনা শিপু গার্মেন্টসে আগুন দেখতে পেয়ে অচেতন হয়ে পড়েন। পরে জ্ঞান ফিরে আসলে তিনি কান্নাভেজা কন্ঠে বলেন, এ গার্মেন্টটি বসময় দেখে রেখেছি। এত কষ্ট করে এই পর্যন্ত কারখানাটিকে এনেছি। আগুনে সব কিছু শেষ করে দিলো।

নারায়ণগঞ্জ ইন্ডাস্ট্রিয়াল পুলিশের পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি মজিবুর রহমানের ভবনে দীর্ঘদিন ধরে ফ্লোর ভাড়া নিয়ে ওই প্রতিষ্ঠানটি চলছিল। আগামী কয়েক মাস পর ভাড়াকৃত এ ভবন ছেড়ে প্রতিষ্ঠানের নিজস্ব ভবনে এ প্রতিষ্ঠান যাওয়ার কথা রয়েছে। স্থানয়ীরা ও এ অগ্নিকান্ডকে রহস্যজনক বলে মনে করেন। গার্মেন্টে ৭ শত শ্রমিক কর্মচারী রয়েছে, অগ্নিকান্ডে ব্যাপক ক্ষতি সাধন হওয়ায় গার্মেন্টটি বন্ধ রয়েছে। এদিকে গার্মেন্টের অগ্নিকান্ডের কারণে সিদ্ধিরগঞ্জের একাংশ লোকাল ফিডারের বিদ্যুৎ সরবরাহ ডিপিডিসি বন্ধ করে দেয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন




Copyright © 2019 All rights reserved bengalreport24.com
Design BY NewsTheme